সহযোগিতা

ফ্রি সবজি বিতরণ করলো শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ।

সারাবিশ্বের মানুষ এক কঠিন সময় পার করছে। করোনাভাইরাস বা কোভিড-১৯ নামক এক অদৃশ্য শত্রুর হাত থেকে বাঁচতে সবাই এখন গৃহবন্দী। এর ব্যতিক্রম হয়নি আমাদের প্রিয় মাতৃভূমিতে। এই দুঃসময়ে দেশের নিন্ম আয়ের মানুষের বড় দুঃচিন্তা হলো পরিবারের জন্য খাদ্য সংগ্রহ করে সবাই মিলে খেয়ে পড়ে বাঁচা। এমন সময়ে এই সকল মানুষের কাছে খাবার পৌঁছে দেবার জন্য রমজানের প্রথম দিন থেকে কাজ করছেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ছাত্রলীগ নেতা মো. ফিরোজ আলম ভূঁইয়া।

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ছাত্রলীগ নেতা মো. ফিরোজ আলম ভূঁইয়া নিজ উদ্যোগে রমজানের প্রথম দিন থেকে নোয়াখালী জেলা শহরের প্রান্তিক এলাকায় প্রতিদিন নিজ অর্থে সবজি বাজার করে গরীব ও দুস্ত মানুষের বাড়ি বাড়ি গিয়ে পৌঁছে দিচ্ছেন। প্রতিদিন ভ্যানগাড়ি ভর্তি করে আলু, ঢেঁড়স, মিষ্টি কুমড়া, লাউ, কাকরোল, শসা, কাঁচা মরিচ, শাক সহ বিভিন্ন ধরনের সবজি কিনে নিজ হাতে প্যাকেট করে শহর ছাড়াও শহরের পার্শ্ববর্তী নোয়াখালী খালের পুন:খননে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের মাঝে ঘুরে ঘুরে এই বিতরণ অব্যাহত রেখেছেন।

ফ্রি সবজি বিতরণ করলো শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ।

নিম্ন মধ্যবিত্ত আয়ের মানুষ যারা তাদের কষ্টের কথা কাউকে মুখ ফুটে লজ্জায় বলতে পারছেন না তাদের গোপনে পৌঁছে দিচ্ছেন নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্য চাল, ডাল, তেল, ছোলা এবং খেজুর।

নিজ উদ্যোগে ৩০ জন প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিভিন্ন ধরনের শাক-সবজির বীজ পৌঁছে দিয়েছেন।

এছাড়াও ঈদের আগে তিনি “ঈদ উপহার” (সেমাই, চিনি, তরল দুধ এবং নুডলস) সবার কাছে পৌঁছে দেবেন সেই আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন।

তিনি বলেন, “করোনাকালে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় শেখ হাসিনার নেতৃত্বে কেউ যেন না খেয়ে থাকে সেই জন্য বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক প্রিয় নেতা লেখক ভট্রাচার্য দাদার নির্দেশনায় আমার মতো ক্ষুদ্র কর্মীর পক্ষে যতটা করা সম্ভব আমি করছি এবং আগামী দিনেও তাঁর নির্দেশনায় করে যাবো ইনশাআল্লাহ।”

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close