রাজনীতিবাংলাদেশ

একজন পবিত্র কুরআনের হাফেজ ধর্মীয় নেতা শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ (১৯৪৫-২০২০)

মোঃ রুহুল আমীন ; শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ ১৯৪৫ সালের ৮ সেপ্টেম্বর গোপালগঞ্জ জেলার কেকানিয়া গ্রামে জন্ম গ্রহণ করেন। তার বাবা মরহুম মোহাম্মদ শেখ মতিউর রহমান ও মা মরহুমা মোসাম্মৎ রাবেয়া খাতুন। পরিবারের ৩ বোন এবং ৪ ভাইয়ের মধ্যে শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ দ্বিতীয়। স্থানীয় গওহরডাঙ্গা হাফেজিয়া মাদ্রাসা থেকে পবিত্র কুরআনের হাফেজ হয়ে শিক্ষা জীবন শুরু করেন শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। এরপর একই মাদ্রাসায় কওমি ধারায় পড়াশোনা করেন তিনি। ১৯৬১ সালে মেট্রিক, ১৯৬৩ সালে উচ্চ মাধ্যমিক এবং ১৯৬৬ সালে বি কম (অনার্স) ডিগ্রী পাস করেন শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। পরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ১৯৭২ সালে এম কম এবং ১৯৭৪ সালে অর্থনীতিতে এমএ ডিগ্রী অর্জন করেন তিনি। ১৯৭৭ সালে ঢাকা সেন্ট্রাল ‘ল’ কলেজ থেকে এলএলবি ডিগ্রী পাস করেন শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ।শিক্ষা জীবন শেষে সুলতানশাহী কেকানিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হিসেবে কর্মজীবন শুরু করলেও এ্যাডভোকেট হিসেবে গোপালগঞ্জ জজ কোর্ট ও ঢাকা জজ কোর্টে প্র্যাকটিস করেন তিনি।

বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারণ করে ছাত্রজীবনেই রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত হন শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। খুলনার আযম খান কমার্স কলেজ ছাত্র সংসদের প্রথম নির্বাচিত ভিপি শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। ১৯৬৬ সালের ছয় দফা আন্দোলনেও সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন তিনি। যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা শেখ ফজলুল হক মনির নেতৃত্বে তিনি আওয়ামী যুব লীগে যোগ দেন। গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এবং গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী যুব লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতিরও দায়িত্বে ছিলেন তিনি। এরপর কেন্দ্রীয় আওয়ামী যুবলীগের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৬৯ সালের গণঅভ্যুত্থানে সক্রিয়ভাবে অংশ নেয়া এই রাজনীতিক ১৯৭১ সালে মুজিব বাহিনীর সঙ্গে সম্পৃক্ত হয়ে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেন। বাংলাদেশ স্বাধীনের পর ১৯৭৩ সালে অনুষ্ঠিত বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলেও রাজনীতিতে ঝুঁকে পড়ে দেশ এবং জাতি তথা iমানব সেবায় নিয়োজিত ছিলেন শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ। দীর্ঘদিন গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। সবশেষে আওয়ামী লীগের বিগত কেন্দ্রীয় কমিটিতে ধর্ম বিষয়ক সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন তিনি। গত ১৩ জুন রোজ শনিবার রাত ১১ঃ৪৫ মিনিটে ঢাকা সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় পবিত্র কুরআনের হাফেজ শেখ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ ৭৫ বছর বয়সে ইন্তেকাল করেন।

Show More

Related Articles

Back to top button
Close
Close