বাংলাদেশব্রেকিং নিউজ

আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ ছাড়ালো একদিনে মৃত্যু ৩৭

প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ দেশে বেড়েই চলেছে। একেই সাথে বাড়ছে মৃতের সংখ্যাও। ফলে ক্রমশ নাজুক হতে চলছে দেশের করোনা পরিস্থিতি। গত কয়েকদিন থেকে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যু ও আক্রান্তের হার। আজও অব্যাহত রয়েছে সেই ধারা।

দেশে বেড়েছে নতুন মৃত্যুর সংখ্যা। গত ২৪ ঘন্টায় দেশে মহামারী কোভিড নাইন্টিনে প্রাণ হারিয়েছেন আরো ৩৭ জন। মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭০৯ জনে।

তবে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ২ হাজার ৯১১ জন। এই নিয়ে ভাইরাসটিতে সংক্রমিত সংখ্যা ৫২ হাজার ৪৪৫ জন। শনাক্তের হার ২২.৯১ শতাংশ।

নতুন করে সুস্থ হয়েছেন ৫২৩ জন। মোট সুস্থের সংখ্যা ১১ হাজার ১২০ জন।

করোনা ভাইরাস নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এর নিয়মিত অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে গত ২৪ ঘন্টায় দেশে করোনার সর্বশেষ তথ্য জানান স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক ড. নাসিমা সুলতানা।

এসময় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এর অতিরিক্ত মহাপরিচালক ড. নাসিমা সুলতানা জানান, সারাদেশে ৫২ টি ল্যাবে নমুনা পরিক্ষা করা হয়েছে ১২ হাজার ৭০৮ টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরিক্ষা করা হয়েছে ৩ লাখ ৩৩ হাজারের বেশি।

মৃত্যুর বিশ্লেষণে বলা হয়, মৃত ৩৭ জনের মাঝে ৩৩ জন পুরুষ ও ৪ জন নারী৷

১০ জন বাসিন্দা ঢাকা বিভাগের, চট্টগ্রাম বিভাগের ১৫ জন, সিলেট বিভাগের ৪ জন বরিশাল বিভাগের ৩ জন, রাজশাহী ২ জন, রংপুরে ৩ জন ও ময়মনসিংহে ১ জন।

হাসপাতালে মারা গেছেন ২৮ জন, বাড়িতে ৯ জন ও মৃত অবস্থায় হাসপাতালে এসেছেন ১ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানায়, দেশে শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ২১ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার ১.৩৫ শতাংশ।

গত ৮ মার্চ প্রথম করোনা ভাইরাস শনাক্ত করা হয়। ১৮ মার্চ প্রথম মৃত্যু দেখে বাংলাদেশ। এরপরে ক্রমশ বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা।

সরকার ঘোষিত সাধারণ ছুটি বাড়ানো হয় নি। সীমিত পরিসরে চলাচল করবে গণপরিবহন। কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা হচ্ছে অফিস-আদালত। অভ্যন্তরীন রুটে বিমান চলাচলও শুরু হবে। যদিও ১৫ জুন বন্ধ থাকছে দেশের সব ধরণের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।





Tags
Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close